নতুনদের জন্য ইউটিউব মার্কেটিং সেরা গাইড

1
101

আজকে মুলত যে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করতে যাচ্ছি সেটি হচ্ছে ইউটিউব মার্কেটিং । আজকে যে বিষয় গুলো তুলে ধরবো এটা সম্পূর্ন আমার নিজের জ্ঞান থেকে, আমি নিজে একজন ইউটিউব মার্কেটার তাই একজন ইউটিউবার হিসেবে যে সঠিক গাইড দরকার সেটি নিয়েই আমি আলোচনা করবো ।

আপনি যদি একজন প্রফেশনাল ইউটিউবার হতে চান তাহলে আপনাকে প্রথমে একটি নিস সিলেট করতে হবে। আপনি যে কোনো নিস নিয়ে কাজ করতে পারেন।  সেটা হোক টেকনোলোজি, নিউজ প্রোটাল, ফানি,বল্গ,ইত্যাদি যে কোনো একটি নিয়ে শুরু করতে হবে এবং ভালো ভালো কন্টেন তৈরি করতে হবে।যেন মানুষ ভিডিওটি দেখে আকৃষ্ট হয়। আর যদি ভালো কন্টেন না তৈরি করতে পারেন তাহলে কোনো লাভ নেই।কারন বর্তমান সময়ে মানুষ চায় ভালো কিছু । আর ভালো কিছু যদি না দিতে পারেন তাহলে নিজের জন্য এখান থেকে ভালো কিছুর আশা কখনো করবেন না । বর্তমান সময়ে যারা এগিয়ে আছে তারা উপরোক্ত কোনো না কোন বিষয় নিয়ে অবস্যই কাজ করছে আপনি তাদের ভিডিও গুলো দেখেও একটা ভালো আইডিয়া নিতে পারেন ।আর হ্যা আমরা সবকিছু সহজেই পেতে চাই মানে খুব দ্রুত পেতে চাই কিন্তু না এটা একদম ভুল আরে ভাই সব সময় ফলো করবেন যারা সাকসেস পেয়েছে তাদের । তারা কিভাবে কাজ করতেছে কি ধরনের কন্টেন তৈরি করছে ।তো চলুন যেনে নেই কি ধরনের কন্টেন আপনার জন্য বেটার হবে।

কি ধরনের কন্টেন আপনার জন্য পরফেক্ট

আসলে আমরা হতাস হয়ে যাই কি নিয়ে কাজ করবো কিন্ত যানেন এটা একদম সিম্পল আমি যদি আজকে আপনাকে ওয়েটা বলে দেই তাহলে আপনি নিজেই আইডিয়া পেয়ে যাবেন যে কি নিয়ে কাজ করবেন । ওকে চলুন শুরু করা যাক, নিরিবিলি একা একা ভাবুন আপনি কি বিষয়ে এক্সপাট নিজেকে প্রশ্ন করুন একটু সময় ব্যায় করুন ।দেখবেন উত্তর টা পেয়ে যাবেন এবার আপনি ওটা নিয়ে ভাবুন যে আমি এ বিষয় নিয়ে এগিয়ে যেতে পারবো কিনা ওটার ব্যাগরাউন্ট সম্পর্কে ভালোভাবে রিছার্জ করুন যে এটার আগে পরে কি হবে । যদি হয় তাহলে তো ভালো আর যদি না হয় তাহলে নেক্সট আরেকটা নিয়ে ভাবুন দেখবেন মিলে জাবে এক সময় ।এবার যেটা নিয়ে ফাইনালি কাজ করতে নামবেন সেটা নিয়ে কয়েকটি ভিডিও বানান নিজে একাই কয়েকবার দেখুুন আর ভাবুন ক্যামন হলো কোথাও কোন ভুল তুটি আছে কিনা সেগুলো সুদরানোর সেষ্টা করুন ।সবকিছু ঠিক করে এবার মাঠে নামার পালা তৈরি করে ফেলুন একটি ইউটিউব চ্যানেল।

যে ভাবে ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করবেন।

আমরা ভাবি যখন আমার এখান থেকে ভালো একটা রেজাল্ট আসবে তখন এটা ভালোভাবে তৈরি করবো আপাদত একরকম ভাবে চালিয়ে নেই। কিন্ত না, শুরুতে যদি ভালোভাবে ভালো কিছু তৈরি করতে পারেন তাহলে পরবর্তিতে অটোমেটিক ভালো রেজাল্ট পাবেন ।আমি এটাই বোঝাতে চাচ্ছি যে আপনি যে চ্যানেলটি তৈরি করতে যাচ্ছেন সেটা সময় নিয়ে ভালো ভাবে তৈরি করুন যেমন ধরুন আপনি একটি টেকনোলোজি রিলেটেড ইউটিউব চ্যানেল করতে চাচ্ছেন । তাহলে আপনাকে একটি টেকনোলোজি রিলেটেড নাম দিতে হবে, এবার সেই রিলেটেড প্রোফাইল পিকচার দিতে হবে এবং একটি কভার ফটো দিতে হবে ।যদি ভালোভাবে নিজে কভার ফটো বা প্রোফাইল পিকচার না তৈরি করতে পারেন তাহলে আপনার পরিচিত অথবা যে কোনো গ্রাফিক্স ডিজাইনার দ্বারা তৈরি করে নিন । এবার ভিডিও আপলোডের পালা

ইউটিউব মার্কেটিং করতে যেভাবে ভিডিও আপলোড করবেন ।

আমি একটা সময় ভিডিও বানাইতাম আর আপলোড করতাম কিন্তু কখনো ভাবি নাই যে ভিডিও এস,ই,ও করতে হয়।ভিডিও আপলোডের সময় এস,ই,ও করা যায় অর্থাত আপলেডের সময় দেখবেন টাইটেল ট্যাগ ডিসক্রিপশন দিতে হয় আর সেগুলো সঠিক ভাবে দেওয়াকেই এস,ই,ও বলে।ধরুন আপনি একটি বিষয় নিয়ে টিউটোরিয়াল দিলেন সেটা হলো কিভাবে ফেসবুক একাউন্ট খুলতে হয় । কিন্তু টাইটেল এ দিলেন কিভাবে টুইটার একাউন্ট খুলতে হয় তাহলে কি হলো? এর মানে যে বিষয় নিয়ে ভিডিও বানান না কেন সেটার রিলিটেড টাইটেল ট্যাগ দিতে হবে। আর এখানে আরেকটি গুরুত্বপূর্ন বিষয় হলো ডিসক্রিপশন । আপনি খেয়াল করে দেখবেন পাচ হাজার ওর্য়াড ডিসক্রিপশন দেওয়া যায় আমরা কি করি দশ বিশ ওর্য়াড দিয়েই শেষ করে দেই না আপনার ভিডিও রিলেটেড মিনিমাম পাঁচশত ওর্য়াড এর একটি ডিসক্রিপশন লিখেবেন তাহলে আশা করি এস,ই,ও টা মোটামোটি ভালো হবে । ওকে সব কিছু করলেন এবার হলো মার্কেটিং

যেভাবে মার্কেটিং করবেন।

 শুরুতেই প্রশ্ন আপনি যে একটা ইউটিউব চ্যানেল খুলছেন সেটা কি আমি যানি ? উত্তর অবস্যই হবে না । কারন আমাকে না বললে আমি কিভাবে জানবো বলেনতো এর মানে কি আমার কাছে মার্কেটিং করলে আমি ঠিকই যানবো । তাহলে দেখুন আমি যানি আপনি একজন ফেসবুক ইউজার এর মানে কি আপনার ফেনলিস্টে মিনিমাম এক দুই হাজার বন্ধু বান্ধব আছে এখন যদি আপনি আপনার ভিডিও লিংক ফেসবুকে শেয়ার করেন তাহলে অবশ্যই শুরুতেই আপনার ভিডিও লিংক দুই হাজার বন্ধু বান্ধবের কাছে চলে যাবে । আর সেখান থেকে ধরুন পঞ্চাষ টি ভিউ চলে আসবে তার মানে নতুন চ্যানেল নতুন ভিডিওতে ভিউ আশা শুরু হয়ে গেছে এবার আপনি আপনার নিস রিলেটেড ফেসবুক গ্রুপে ভিডিওটি শেয়ার দিন সুধু একটি না বেশ কিছু গ্রুপে শেয়ার দিন এভাবে শূধু ফেসবুকে না সব ধরনের সোস্যাল মিডিয়া গ্রুপে শেয়ার দিন দেখবেন ভিউ কাকে বলে ।আর সুধু ভিই না সাবক্রাইব ও পরবে ।

যেভাবে সাবক্রাইব পরবে

আমরা একটি চ্যানেল খুলে কিছু ভিডিও দিয়েই পাগল হয়ে যাই যে সাবক্রাইব পরে না কেন। আরে ভাই ভিডিওর কলেটি ভালো হলে অটোমেটিক সাবক্রাইব পরবে । আপনি ভালো ভালো ভিডিও দিয়ে যান আসতে আসতে পরতে থাকবে এবং গড় বারতে থাকবে ধরুন প্রথম দিনে মাত্র একটি পরলো পরের দিন দেখবেন আরো বেশি পরেছে এভাবে দিন যত যাবে তত বারতেই থাকবে পাচ হাজার হতে যত দিন লাগবে দেখবেন পাচ হাজার থেকে দশ হাজার হতে তার চেয়ে কম সময় লাগবে আবার দশ হাজার থেকে বিশ হাজার হতে তার চেয়ে কম সময় লাগবে এর মানে যত সময় যাবে তত গড় বেরেই চলবে । আর এর মধ্যে যদি একটা ভিডিও ভাইরাল হয় তাহলে তো কোনো কথাই নাই ।

ভাইরাল ভিডিও নিয়ে কিছু কথা

এটা সম্পূন হচ্ছে কপাল কেউ কেউ শত চেষ্টা করে ভাইরাল করতে পারতেছে না আবার কারো আজান্তেই ভাইরাল হয়ে যাচ্ছে । তবে ভালো মানের ভিডিও এবং মানুষের উপকারি,বাস্তবের সাথে মিল ,এগুলো ভিডিও খুবি তারাতারি ভাইরাল হয় ।তবে এটা নিয়ে চিন্তা না করাই ভালো যতক্ষন চিন্তা করবেন ততক্ষন ভালো কন্টেন তৈরি কুরন , মানুষের কাছে ভালো লাগলে দেখবেন অটোমেটিক ভাইরাল হয়ে গেছেন । আর সেই একটি ভিডিওই পালটে দিতে পারে আপনার লাইফ

ফাইনাল নোটিশ

আমরা এতক্ষন বগ বগ করলাম আর আপনি শুধু পরে বা শুনেই গেলেন কিন্ত কোনো প্রকার কাজে নামলেন না , তাহলে কি হলো আরে ভাই সব দিকেই থাকতে হবে  শিখতেও হবে আবার সেটা নিয়ে কাজও করতে হবে তালে আপনি কিছু করকে পারবেন ।সুধু সুধু শুনলে হবে না । কথায় আছে না কষ্ট করলে কৃষ্ট মিলে আপনি যদি কষ্ট না করেন তাহলে আপনার কৃষ্ট কে মিলিয়ে দিবে কেই না। অতএব কাজে নামুন ঠিকঠাক মত কাজ চালিয়ে যান একদিন দেখবেন এরকম  পোষ্ট আপনিও দিচ্ছেন আর সেদিন আপনার বলার সময় হবে ,কেই ঠেকাতে পারবে না আপনাকে ।ধন্যবাদ

1 COMMENT

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here